ব্রেকিং নিউজ
Home / খবর / একে একে মুখোশ উন্মোচিত হবে: সোহেল তাজ

একে একে মুখোশ উন্মোচিত হবে: সোহেল তাজ

‘রাজনীতি থেকে সরিয়ে দিতে চায়’ বলে অভিযোগ করেছেন তানজিম আহমেদ সোহেল তাজ ক্ষমতাসীন ‘আওয়ামী লীগের ভেতর একটি কুচক্রী মহল’ বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী তাজউদ্দিন আহমেদের পরিবারকে। একইসঙ্গে গাজীপুরের কাপাসিয়ায় ‘নোংরা টাকার অপরাজনীতি হচ্ছে‘ উল্লেখ করে তিনি সতর্কবার্তা দিয়ে বলেন, ‘একে একে মুখোশ উন্মোচিত হবে’। নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক পাতায় রোববার এক পোস্টে তিনি এসব কথা লেখেন।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান পরিবারের সঙ্গে তাদের পরিবারের বিভেদ সৃষ্টির চেষ্টা চলছে উল্লেখ করে সোহেল তাজের ভাষ্য, ওই ‘কুচক্রী মহলের ‘প্রভাব দলের ভেতরে’ এমনকি ‘প্রশাসনের সর্বস্তরে’ রয়েছে।

একইসঙ্গে, নিজ এলাকা গাজীপুরের কাপাসিয়াতে কোন অপরাজনীতি না হতে দেয়ার জন্য এলাকাবাসীর প্রতি তিনি আহ্বান জানিয়েছেন।

সোহেল তাজ তার ওই লেখার সঙ্গে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাজউদ্দিন আহমেদের একটি ছবি পোস্ট করেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সাড়ে ৯ হাজার মানুষ পোস্টটিতে রিঅ্যাক্ট করেছেন। কমেন্ট এসেছে ৮২৩টি আর শেয়ার হয়েছে হাজার বারের বেশি।

মূল পোস্টটি লিঙ্কসহ এখানে দেয়া হলো:

এর আগে গেল ৩১শে মে আরেকটি পোস্টে সোহেল তাজ লিখেছিলেন, অনেক দিন ধরেই মাতৃভূমি বাংলাদেশের জন্য, বিশেষ করে দেশের যুব সমাজের জন্য ভালো কিছু করার কথা ভাবছি।

তেমন একটি আইডিয়াও পেয়ে গেছেন উল্লেখ করে সোহেল তাজ জানান, ঈদের পরে তা প্রকাশ করবেন।

এই পোস্টটিতে রিঅ‌্যাক্ট করেছেন ৪২ হাজার ফেসবুক ব্যবহারকারী। এতে মন্তব্য রয়েছে প্রায় সাত হাজার আর শেয়ার হয়েছে প্রায় ৩ হাজার ৩শ বারের বেশি। পোস্টে দেয়া মন্তব্যে রাজনৈতিক মতাদর্শ নির্বিশেষে সোহেল তাজের ফেসবুক ফলোয়াররা তাকে স্বাগত জানিয়েছেন এবং এমন কোন উদ্যেগে তার পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

উল্লেখ্য, তাজউদ্দিন পুত্র সোহেল তাজ ২০০৯ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে গাজীপুর-৪ (কাপাসিয়া) আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। পরে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পান। তবে, মন্ত্রীত্ব পাওয়ার ছ’মাস পরই ৩১শেমে মন্ত্রীপরিষদ থেকে পদত্যাগ করেন তিনি। পরে ২০১২ সালের ২৩শে এপ্রিল কাপাসিয়া আসনের আইনপ্রণেতার পদ থেকেও সরে দাড়ান। ঘোষণা দেন সক্রিয় রাজনীতিতে আর যুক্ত হবেন না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar