Home / ফিচার / তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শুরু ৫৩ দিন পর বড়পুকুরিয়া

তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শুরু ৫৩ দিন পর বড়পুকুরিয়া

দেশের একমাত্র কয়লা ভিত্তিক বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উৎপাদন দীর্ঘ ৫৩ দিন বন্ধ থাকার পর আবারো শুরু হয়েছে । বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি থেকে কয়লা প্রাপ্তির পর বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২ টা ২৭ মিনিটে উৎপাদন শুরু করেছে বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি। ওই সময় থেকে চালু হওয়া ২৭৫ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন ওই ইউনিট থেকে ১৫৭ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ দেয়া হচ্ছে জাতীয় গ্রিডে।
বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী আব্দুল হাকিম সরকার জানান, মোট ৫২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন এই বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রের ২৭৫ মেগাওয়াট উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন তৃতীয় ইউনিটটি বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২ টা ২৭ মিনিটে চালু করা হয়েছে। ওই সময়ে ১৫৭ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনের রেকর্ড করা হয়। পরবর্তীতে ধীরে ধীরে এই উৎপাদন আরও বৃদ্ধি পাবে বলে জানান তিনি। বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি থেকে বর্তমানে প্রতিদিন গড়ে দেড় হাজার মেট্রিক টন কয়লা সরবরাহ পচ্ছে বলে জানান বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী আব্দুল হাকিম সরকার। কয়লার মজুদ বাড়লে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রথম ও দ্বিতীয় ইউনিট দুটি চালু করা হবে বলে জানান তিনি।
গত ১৯ জুন বড়পুকুরিয়া খনি থেকে ১ লাখ ৪৪ হাজার মেট্রিক টন কয়লা উধাও হয়ে যাওয়ায় কয়লার অভাবে গত ২২ জুলাই বন্ধ হয়ে যায় বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উৎপাদন। এরই মধ্যে গত ২০ আগস্ট শুধুমাত্র ঈদের জন্য বিদ্যুৎ কেন্দ্রটির ১২৫ মেগাওয়াট উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন একটি ইউনিট চালু করা হয়। ৯ দিন চালু থাকার পর তা আবার কয়লার অভাবে বন্ধ হয়ে যায়। টানা ৮৬ দিন বন্ধ থাকার পর গত ৮ সেপ্টেম্বর বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে আবার কয়লা উত্তোলন শুরুর ৫ দিনের মাথায় বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের বিদ্যুৎ উৎপাদন শুরু হয়েছে। কয়লা কেলেঙ্কারির ঘটনায় ১৯ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে দায়ের করা একটি মামলা দুদক তদন্ত করছে। পৃথক ৩টি তদন্ত কমিটি হয়েছে এই মামলার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar