Home / খবর / দুই হাজার মানুষের প্রাণ সড়কে ছয় মাসে ঝরেছে

দুই হাজার মানুষের প্রাণ সড়কে ছয় মাসে ঝরেছে

দেশে ১০ জনেরও বেশি মানুষের প্রাণহানি ঘটছে ভয়াবহ আকার ধারণ করা সড়ক দুর্ঘটনায় প্রতিদিন। চলতি বছরের প্রথম ছয় মাসে সারাদেশে প্রায় দুই হাজার মানুষ সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন। নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) পরিসংখ্যান থেকে এ তথ্য জানা যায়। এতে আরো বলা হয়, চলতি বছরের প্রথম ছয় মাসে সারাদেশে ১ হাজার পাঁচশ ৪৯টি সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে। এসব ঘটনায় নিহতদের পাশাপাশি ৩ হাজার আটশ ৩১ জন মানুষ আহত হয়েছেন। ভয়াল এই অবস্থার মাঝে আজ দেশে নিরাপদ সড়ক দিবস পালিত হচ্ছে। এই উপলক্ষে সরকারি বেসরকারিভাবে বিভিন্ন কর্মসূচিও গ্রহণ করা হয়েছে।
নিসচা’র দায়িত্বশীল একটি সূত্র জানিয়েছে, দুর্ঘটনায় প্রতিদিনই রক্ত ঝরছে সড়কে। গড়ে মারা যাচ্ছে দশ জন মানুষ। আহত হচ্ছেন আরো কয়েকগুণ বেশি। নিরাপদ সড়ক আন্দোলন বিভিন্ন সংবাদপত্র এবং টিভি সংবাদ থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে একটি পরিসংখ্যান তৈরি করেছে। যাতে গত ছয় মাসের ভয়াবহ চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। এতে উল্লেখ করা হয়, গত জানুয়ারিতে ৩২৪টি দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন ৩৫৮ জন, ফেব্রুয়ারিতে ২৪৮টি দুর্ঘটনায় নিহত ৩২২ জন, মার্চে ২১১টি দুর্ঘটনায় নিহত ২৫৬ জন, এপ্রিলে ২৫৬টি ঘটনায় ৩০১ জন, মে মাসে ২৩৭টি ঘটনায় ২৬৫ জন, জুনে ২৭৩টি ঘটনায় নিহত হন ৩৮১ জন। অপর একটি সূত্র বলছে, সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণহানির সংখ্যা কেবলই বাড়ছে। ২০১৭ সালে তিন হাজার ১৩১টি সড়ক দুর্ঘটনায় পাঁচ হাজার ৩৯৭ জন নিহত ও সাত হাজার ৭৩৬ জন আহত হন। এর আগের বছর ২০১৬ সালে দুই হাজার ৩১৬টি দুর্ঘটনায় চার হাজার ১৪৪ জন নিহত ও পাঁচ হাজার ২২৫ জন আহত হয়েছিলেন।
এতে দেখা যায়, এক বছরের ব্যবধানে সড়ক দুর্ঘটনায় মানুষের মৃত্যুর হার বেড়েছে ২৭ দশমিক ৩৬ শতাংশ। যা অত্যন্ত উদ্বেগজনক উল্লেখ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, নানাভাবে চেষ্টা করা হলেও বেপরোয়া চালকদের কোনো ভাবেই নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব হচ্ছে না। তাদের এরকম বেপরোয়া মনোভাবের কারণে প্রতিদিন অসংখ্য মানুষ রাস্তাঘাটে প্রাণ হারাচ্ছে।
নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের চট্টগ্রামের নেতা লায়ন এসএম আবু তৈয়ব গতকাল দৈনিক আজাদীর সাথে আলাপকালে বলেন, সড়ক দুর্ঘটনা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। প্রতিদিন মানুষ মরছে। একটি মৃত্যু একটি পরিবারকে পথে বসিয়ে দেয়ার বহু নজির রয়েছে। এটি সহ্য করা কঠিন। তিনি সচেতনতার অভাবে সড়ক দুর্ঘটনা ঘটছে উল্লেখ করে বলেন, আমরা সবাই সচেতন হলে ভয়াল এই অবস্থার অবসান ঘটবে। জনসচেতনতা বাড়াতে নগরীতে আজ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar