Home / আর্ন্তজাতিক / বাংলায় এনআরসি ব্রিজের নিচের বাংলাদেশি তাড়াতে !

বাংলায় এনআরসি ব্রিজের নিচের বাংলাদেশি তাড়াতে !

বাংলাদেশীরা থাকে ব্রিজের নিচে । বাংলায় জাতীয় নাগরিকপঞ্জিকরণ বা এনআরসি চালু করার নতুন হেতু পেলেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বৃহস্পতিবার নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সাংবাদিক বৈঠক সবে শেষ হয়েছে। পালটা সাংবাদিক বৈঠকে দিলীপের দাবি, কলকাতায় ব্রিজের নিচে বাংলাদেশী তাড়াতেই এনআরসি জরুরি।

নবান্নে সাংবাদিক বৈঠক করে মমতা জানিয়েছিলেন, ব্রিজের নিচের জায়গা খালি করতে হবে৷ কলকাতা সহ লাগোয়া অলাকায় অন্তত ২০টি ব্রিজের স্বাস্থ্যের হাল বেহাল৷ শুধু মাঝেরহাট ব্রিজই নয়, শিয়ালদহ উড়ালপুল, ঢাকুড়িয়া উড়ালপুল, বিজন সেতু, ব্রেস ব্রিজ সহ আরও অনেক ব্রিজের অবস্থা খুবই খারাপ। রাজ্য সরকারের তরফে নাকি পুলিশকে ব্রিজের তলা খালি করার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে৷ব্রিজের নিচের অংশ ফাঁকা করার খবর জানার পর দিলীপ বলেন, ব্রিজের নিচে বাংলাদেশীরা থাকে। এই কারণেই জাতীয় নাগরিকপঞ্জিকরণ চালু করা প্রয়োজন। প্রসঙ্গত, এনআরসি নিয়ে সম্প্রতি রাসা দেশে কিংবা রাজ্যে জল ঘোলা কম হয়নি। অসমে এনআরসির প্রাথমিক রিপোর্টের ভিত্তিতে ৪০ লক্ষ মানুষ সেখানে বেআইনি অনুপ্রবেশকারী৷। ঘটনা জানাজানি হতেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরব হয়েছেন।

রাজ্যে এসে সভা করে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ পালটা বলেছেন, বাংলায় বিজেপি ক্ষমতায় এলে এনআরসি চালু করা হবেই৷ প্রসঙ্গক্রমে, কিছুদিন আগেই অমিত শাহকে জবাব দিতে মমতা বলেছিলেন, অমিত শাহের বাবার সার্টিফিকেট আছে তো?’’ সব মিলিয়ে এনআরসি নিয়ে নরমে গরমে কেন্দ্রের শাসক এবং রাজ্যের শাসকের মধ্যে তরঝা চলছেই৷ তার মধ্যেই দিলীপের এই বক্তব্য উত্তাপ বাড়ালো।

সূত্রঃ কলকাতা ২৪x৭

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar