Home / অন্যান্য / নির্বাচন / রাজনীতি ছাড়ব ম্যাডাম কোনো আসনে হারলে : নজরুল

রাজনীতি ছাড়ব ম্যাডাম কোনো আসনে হারলে : নজরুল

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া যতগুলো আসনে দাঁড়াবেন সব আসনে বিজয়ী হবেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলেছেন। কোনো আসনে পরাজিত হলে তিনি রাজনীতি ছেড়ে দেবেন।

মঙ্গলবার বিকালে ময়মনসিংহে খালেদা জিয়ার কারামুক্তির দাবিতে আয়োজিত কর্মিসভায় তিনি এসব কথা বলেন। শহরের চরপাড়ায় একটি কমিউনিটি সেন্টারে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘সাহস থাকলে নিরপেক্ষ-নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিন। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া তিনটি আসনে নির্বাচন করবেন। কোনো আসনে তিনি পরাজিত হলে রাজনীতি ছেড়ে দেব।’

দুর্নীতি মামলায় দণ্ডিত হলেও খালেদা জিয়া নির্বাচন করতে পারবেন বলে মনে করেন বিএনপির এই নেতা। তিনি উদাহরণ দিয়ে বলেন, ‘আওয়ামী লীগের মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার ১৩ বছর সাজা হয়েছে, মহীউদ্দীন খান আলমগীরেরও সাজা হয়েছে। কিন্তু তারা এখনো এমপি পদে বহাল আছেন।’

নজরুল ইসলাম বলেন, ‘দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি না হওয়া পর্যন্ত শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চলবে। দেশের স্বার্থে, জনগণের স্বার্থে-গণতন্ত্রের স্বার্থে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রয়োজন। তাই শান্তিপূর্ণভাবে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন চালিয়ে যেতে হবে।’

স্থায়ী কমিটির এই সদস্য বলেন, ‘যে মামলায় দেশনেত্রীকে সাজা দেয়া হয়েছে, সে মামলার কোনো ভিত্তি নেই। আইন অনুযায়ী দেশনেত্রীকে অভিযোগ পড়ে শোনানো হয়নি। এ মামলার সঙ্গে খালেদা জিয়ার কোনো সম্পর্ক নেই। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে কিছু ছায়া-নথি কাটা-ছেঁড়া করে প্রকাশ করা হয়েছে। মূলত আদালতের ঘাড়ে বন্দুক রেখে এ সরকার সবকিছু করছে।’

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘সরকারকে চান্স দেবেন না। সরকার আশা করেছিল খালেদা জিয়ার সাজা হলে আমরা বাসে ঢিল মারবো। তখন তারা বাসে আগুন দিয়ে মানুষ পুড়ে আমাদের নামে মামলা দেবে। কিন্তু সে সুযোগ না পেয়ে সরকারের মনে বড় কষ্ট।’

জেলা বিএনপি দক্ষিণ শাখার সভাপতি একেএম মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপির নির্বাহী কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ ইমরান সালেহ্ প্রিন্স, কাজী রানা, মোতাহার হোসেন তালুকদার, অধ্যাপক একেএম শফিকুল ইসলাম, সাবেক এমপি শাহ শহীদ সারোয়ার, নূরজাহান ইয়াসমীন, শাহ নূরুল কবীর শাহীন, বিএনপি নেতা অধ্যাপক শেখ আমজাদ আলী, আলমগীর মাহমুদ আলম, ফখরুদ্দিন আহম্মেদ বাচ্চু, জাকির হোসেন বাবলু, জাকারিয়া হারুন লিটন আকন্দ প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Skip to toolbar