ইতালি করোনায় আবার বিপর্যস্ত, আসছে লকডাউন

39

ইতালি করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপের প্রাদুর্ভাবে বিপর্যস্ত । প্রতিদিন বাড়ছে আক্রান্ত এবং মৃত্যুর সংখ্যা। করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে শুক্রবার থেকে কয়েকটি অঞ্চলে আবার নতুন করে লকডাউন শুরু হচ্ছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে মৃত্যুবরণ করেছে ৩৫২ জন। এ নিয়ে দেশটিতে করোনাভাইরাসে মোট মারা গেছে ৩৯ হাজার ৭৬৪ জন। এদিন মোট টেস্ট করা হয় দুই লাখ ১১ হাজার ৮৩১ জন। এর মধ্যে আক্রান্ত ৩০ হাজার ৫৫০ জন। এ নিয়ে দেশটিতে মোট আক্রান্ত সাত লাখ ৯০ হাজার ৩৭৭ জন।

গুরুতর অসুস্থ রোগীর সংখ্যা দিনে দিনে বেড়েই চলছে। এ সংখ্যা বুধবার পর্যন্ত দুই হাজার ৮৩৮ জনে দাঁড়িয়েছে।

এদিকে ইতালির প্রধানমন্ত্রী জুসেপ্পে কন্তে করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ধাপের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে ৪ নভেম্বর দুপুরে নতুন অধ্যাদেশ স্বাক্ষর করেছেন। এই অধ্যাদেশ কার্যকর হবে ৬ নভেম্বর থেকে ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

নতুন অধ্যাদেশ অনুযায়ী ইতালিকে লাল, হলুদ এবং কমলা এলাকা তিন ভাগে বিভক্ত করা হয়েছে।

লাল চিহ্নিত অঞ্চলে রয়েছে- মিলান লোম্বার্দিয়া, পিয়ামন্তে, কালাব্রিয়া, ভাল্লে দা’অস্তা। এসব অঞ্চলে সম্পূর্ণ লকডাউন থাকবে। ওই সব এলাকা থেকে স্বঘোষিত সার্টিফিকেট ছাড়া কেউ বাইরে বের হতে পারবে না। এমনকি অন্য অঞ্চলে যেতে এবং বাইরে থেকে কেউ এ অঞ্চলে কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া (বিশেষ প্রয়োজনে) প্রবেশ করতে পারবে না।

লাল অঞ্চলে ফার্মাসি, সেলুন, খাবারের দোকান, ইন্ডাস্ট্রি, ফেক্টরি ছাড়া বার, রেস্টুরেন্টসহ সব বন্ধ থাকবে।

এই মুহূর্তে পুলিয়া, লিগুরিয়া, ভেনেতো কমলা এবং হলুদ অঞ্চলের মধ্যে রয়েছে। তবে ক্যাম্পানিয়া কমলা জোন থেকে রেড জোনে যেতে পারে।

রোম লাসিওসহ ইতালির অন্যান্য অঞ্চল হলুদ জোনের আওতাধীন রয়েছে। এ সব অঞ্চলে ইতালির বর্তমান নিয়মে চলতে থাকবে।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ইতালির অন্যান্য স্থানের বিষয়গুলো পূর্ণাঙ্গভাবে পরে জানানো হবে।