করোনার নতুন ধরন ‘ল্যাম্বডা’ শনাক্ত হয়েছে দেশে

54

করোনার নতুন ধরন ‘ল্যাম্বডা’ শনাক্ত হয়েছে ডেলটা ধরনের পর দেশে এবার । রাজধানীতে ৪৯ বছর বয়সী এক নারীর নমুনা সিকোয়েন্সিং করে এর উপস্থিতি পাওয়া গেছে। পেরুর এই নতুন ধরনটির নাম ল্যাম্বডার C.37। জার্মানির গ্লোবাল ইনিশিয়েটিভ অন শেয়ারিং অল ইনফ্লুয়েঞ্জা (জিআইএসএআইডি) এ তথ্য জানিয়েছে।

জিআইএসএআইডি জানায়, বিশ্বের ৩৪টি দেশে ছড়িয়ে পড়া পেরুর এ ধরনটি মার্চ মাসে সংগ্রহ করা এক নমুনায় শনাক্ত হয়েছে। জিনোম সিকোয়েন্সের তথ্য আপলোড করেছেন বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদ (বিসিএসআইআর)। বিসিএসআইআর এবং জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় যৌথভাবে এ জিনোম সিকোয়েন্স করে।

তবে বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদের (বিসিএসআইআর) প্রধান ভাইরালোজিস্ট ডা. সেলিম জানান, তাদের সফটওয়্যার এক সময় দেখাচ্ছে আছে, এক সময় নেই। এই নিয়ে তারা নিজেরাও বিভ্রান্তির মধ্যে রয়েছেন। আরও পরীক্ষার পর নিশ্চিত হতে পারলে আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হবে।
ল্যাম্বডা ভ্যারিয়েন্টের আচরণ :

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, পূর্ববর্তী ডেলটার চেয়েও মারাত্মক হতে পারে নতুন এই ভ্যারিয়েন্টটি। একইসঙ্গে ল্যাম্বডার ধরন ভ্যাকসিনকেও ফাঁকি দিতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন চিলির একদল গবেষক। কমপক্ষে ছয় লেয়ারের উচ্চ প্রযুক্তির মাস্ক ল্যামডার সংক্রমণ ঠেকাতে সক্ষম বলে জানিয়েছেন ইনফেকশন কন্ট্রোল টুডে (আইসিটি) নামক একটি জার্নাল।

চিলির গবেষকরা তাদের বিবৃতিতে জানান, তাদের গবেষণার ফল বলছে, ল্যামডা ভ্যারিয়েন্টের ব্যতিক্রমী স্পাইক প্রোটিন তাকে নিউট্রালাইজিং অ্যান্টিবডি ফাঁকি দিতে সাহায্য করে এবং অকার্যকারিতা বাড়াতে পারে।