জয়া দ্বৈত নাগরিকত্ব প্রসঙ্গে কী বললেন?

102

ঢাকা থেকে কলকাতা যাওয়া-আসার মধ্যেই থাকেন জয়া আহসান শুটিংয়ের প্রয়োজনে। সম্প্রতি ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এবেলায় প্রকাশিত ভিডিও সাক্ষাৎকারে দুই বাংলার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রীকে প্রশ্ন করা হয়, তিনি  দ্বৈত নাগরিকত্ব চান কি না।

উত্তরে জয়া আহসান বলেন, ‘সেই অপশনটা তো নেই। যদি নেওয়া যেত, আমি অবশ্যই নিতাম। কিন্তু ভারতবর্ষ সেটা পারমিট করছে না। আসলে আমি দুটি বা একটি পাসপোর্ট ক্যারি করি না কেন, আমি মনেপ্রাণে বাংলার মানুষ।’

জয়া আহসান আরো বলেন, ‘দুই বাংলার মানুষের ভালোবাসা পাওয়া ভাগ্যের ব্যাপার। সেটা আমার পরম পাওয়া। এটা আমার জন্য বোনাস।’

দুদিন পরই কলকাতায় মুক্তি পাচ্ছে জয়া আহসান অভিনীত ছবি ‘বিজয়া’। টলিউডের গুণী নির্মাতা কৌশিক গাঙ্গুলী পরিচালিত ‘বিসর্জন’ ছবিটি ভারতে ব্যাপক আলোচিত হয়। ছবিটিতে অসাধারণ অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে বেশ কিছু পুরস্কারও পেয়েছেন  জয়া আহসান। বিসর্জনের সিক্যুয়াল হিসেবে আসছে ‘বিজয়া’। নতুন এই ছবিটি নিয়েও আশাবাদী  জয়া আহসান। তিনি বলেন, ‘বিসর্জন অত্যন্ত আমার প্রাণের কাছাকাছি একটি চলচ্চিত্র। পদ্মা থেকে শুরু করে নাসির আলী, গণেশ মণ্ডল প্রতিটি চরিত্রই এখনো উজ্জ্বল বাঙালির মননে। কিন্তু কিছু কিছু গল্প হঠাৎ শেষ হয়ে যায় না। তাই পদ্মা, নাসির আলী, গণেশ মণ্ডলরা আবার ফিরছে বড় পর্দায়। আমার বিশ্বাস, বিসর্জনের মতো বিজয়াও আপনাদের সবার মন ছুঁয়ে যাবে।’

বাংলাদেশের ‘চোরাবালি’, ‘গেরিলা’ ও ‘জিরো ডিগ্রি’ চলচ্চিত্রে অনবদ্য অভিনয়ের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন জয়া আহসান। সর্বশেষ অক্টোবরে মুক্তি পায় তাঁর প্রযোজিত ও অভিনীত ছবি ‘দেবী’। বাংলাদেশ, যুক্তরাষ্ট্রসহ বেশকিছু দেশে দর্শকপ্রিয় হয় ছবিটি। ‘ফুড়ুৎ’ শিরোনামে নতুন একটি ছবি প্রযোজনা  করার ঘোষণাও এরই মধ্যে দিয়েছেন জয়া আহসান। তাঁর  প্রযোজনা সংস্থা  ‘সি তে সিনেমা’ থেকে ছবিটি নির্মিত হবে।