Home / অন্যান্য / অপরাধ / নিহত ২ রাজৈরে পৃথক সংঘর্ষে নারীসহ

নিহত ২ রাজৈরে পৃথক সংঘর্ষে নারীসহ

পৃথক সংঘর্ষে নারীসহ দুই জন নিহত হয়েছেন মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলায় । মঙ্গলবার উপজেলার কদমবাড়ী ইউনিয়নের লক্ষ্মীপুর গ্রামে ও খালিয়া ইউনিয়নের উল্লবাড়ী গ্রামে এসব সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- লক্ষ্মীপুর গ্রামের মৃত জীতেন মন্ডলের ছেলে নির্মল মন্ডল (৫৫) ও খালিয়া ইউনিয়নের উল্লবাড়ী গ্রামের সুধীর রায়ের স্ত্রী প্রমিলা রাণী রায় (৫০)।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, লক্ষ্মীপুর গ্রামের পরী বাইনের সঙ্গে নির্মল মন্ডলের জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে তিনি পরী বাইনের বাড়ির সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় নির্মল মন্ডলকে উদ্দেশ্য করে কটুবাক্য করে তিনি। এসময় তাদের মধ্যে সংর্ঘষের সৃষ্টি হয়। সংঘর্ষের এক পর্যায়ে নির্মল মন্ডলের মাথায় হাতুড়ি দিয়ে আঘাত করে পরী বাইন। এরপর তাকে রাজৈর হাসপাতালে নেয়া হয়। অবস্থার অবনতি হলে সেখান থেকে রাত ১টার দিকে ফরিদপুর মেডিকলে কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। এই ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে প্রতিপক্ষ পংকজ বিশ্বাস, শংকর বিশ্বাসসহ চার জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

অন্যদিকে উল্লাবাড়ী গ্রামে মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে জমিতে পানি দেয়াকে কেন্দ্র করে কমলেশ রায়ের সঙ্গে সুকান্ত রায়ের কথা কাটাকাটি হয়। এসময় সুকান্তের মা প্রমিলা রানী রায় ঝড়গা মিমাংসার চেষ্টা করলে তাদের ধাক্কায় তিনি পড়ে গিয়ে আহত হন। পরে তাকে হাসপাতালে নেওয়ার সময় পথেই তার মৃত্যু হয়। ঘটনাটি পুলিশ খতিয়ে দেখছেন।

প্রমিলা রানীর ছোট ছেলে সুজল রায় বলেন, ‘আমার মাকে ইচ্ছে করে কমলেশ হত্যা করেছে। মা বড় ভাইয়ের সঙ্গে কমেলশের ঝগড়ার সময় মিমাংসা করতে গিয়েছিল, তখন তাকে ধাক্কা দিয়ে মাটিতে ফেলে দেয়। আমরা তাকে উদ্ধার করে হাসপতালে নেয়ার পথে তিনি মারা যায়। এই ঘটনার বিচার চাই।’

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার শওকত জাহান জানান, ‘কদমবাড়ীর ঘটনায় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্যে মাদারীপুর মর্গে পাঠিনো হয়েছে। নিহতের পরিবার মামলা করলে ফাইলভুক্ত করা হবে। দোষীদের গ্রেপ্তারেরও চেষ্টা চলছে। তবে উল্লবাড়ীর ঘটনাটি এখনো পুরোপুরি জানা যায়নি বলে জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: