বাক প্রতিবন্ধী যুবক খুন ফুটবল খেলা নিয়ে দ্বন্দ্বে

28

বাক প্রতিবন্ধী যুবক খুন হয়েছে ফুটবল খেলা নিয়ে দ্ব্েদ্বর জেরে নয়ন হোসেন (২৫) নামে যশোরের ঝিকরগাছায় । শনিবার ঝিকরগাছা উপজেলার টাওরা গ্রামে ঘটনাটি ঘটে। নিহত নয়ন ওই গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে। তিনি বাক প্রতিবন্ধী ছিলেন বলে স্বজনরা জানিয়েছেন। এই ঘটনায় গুরুতর আহত টাওরা গ্রামের আব্দুল কাদেরের ছেলে জহুরুল ইসলাম (২৭) যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

আহত জহুরুল ইসলাম জানান, শনিবার বিকালে নীলকন্ঠনগর ও টাওরা গ্রামের মধ্যে ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়। খেলায় নয়নের করা একটি গোল নিয়ে দুই দলের মধ্যে বিরোধ হয়। এ সময় অস্ত্রের আঘাতে কয়েকজন আহত হন।

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে দায়িত্বরত চিকিৎসক আহমেদ তারেক শামস্ জানান, রাত ৭ টা ৫০ মিনিটে দুইজনকে হাসপাতালে আনা হয়। এরমধ্যে নয়ন মৃত অবস্থায় ছিলো। আরেকজন জহুরুলকে ভর্তি করে চিকিৎসার জন্য ওয়ার্ডে পাঠানো হয়। হাসপাতালে পৌঁছানোর অনেক আগেই নয়ন মারা গেছে। তার শরীরে গলার নিচে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে।

নিহত ও আহতের স্বজনরা জানান, হামলায় মোট ৫ জন আহত হয়। এরমধ্যে ২ জনকে যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল ও ৩ জনকে ঝিকরগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়। যশোর হাসপাতালে পাঠানো ২ জনের মধ্যে নয়ন মারা গেছেন। তার মৃতদেহ হাসপাতাল মর্গে রয়েছে। ঝিকরগাছা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ৩ জন হলেন টাওরা গ্রামের মামুন (২০), দেলু (৬০) ও আশা (২০)।