ব্রেকিং নিউজ
Home / খবর / মাত্র ৩০০ টাকা করোনা পরীক্ষায় খরচ দেশেই তৈরি হচ্ছে কিট

মাত্র ৩০০ টাকা করোনা পরীক্ষায় খরচ দেশেই তৈরি হচ্ছে কিট

গণস্বাস্থ্য-আরএনএ বায়োটেক লিমিটেড দেশেই উৎপাদিত হবে করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) পরীক্ষার কিট। আর ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের (ডিজিডিএ) অনুমোদন পেলেই এটি বাজারে ছাড়তে পারবে বলে জানিয়েছে উৎপাদক সংস্থা । গতকাল গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এই কিটের প্রত্যেকটির জন্য খরচ পড়বে ২০০ টাকার মতো। গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা জাফরুল্লাহ চৌধুরী একটি ইংরেজি দৈনিককে জানিয়েছেন, গণস্বাস্থ্য সিঙ্গাপুরের বিশেষজ্ঞদের একটি সমন্বিত দল এই কিট আবিষ্কার করেছে। তিনি বলেন, আমরা আশা করছি, এই কিট দেশে করোনা পরীক্ষা নিয়ে মানুষের মধ্যে তৈরি হওয়া ভয় কমাবে। আমরা ডিজিডিএ’র কাছে অনুমতির জন্য আবেদন করেছি। অনুমতি পেলে এক মাসের মধ্যে আমরা উৎপাদনে যেতো পারবো।
আমরা আশা করছি, এই ডায়াগনস্টিক কিট ২০০ টাকায় বিক্রেতা এবং ল্যাবগুলোতে দিতে পারবো।
সরকারের উচিৎ হবে বিষয়টি মনিটরিং করা যাতে সাধারণ জনগণ ৩০০ টাকার মধ্যে পরীক্ষা করাতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি। দেশেই উৎপাদিত হবে করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) পরীক্ষার কিট। আর ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের (ডিজিডিএ) অনুমোদন পেলেই এটি বাজারে ছাড়তে পারবে বলে জানিয়েছে উৎপাদক সংস্থা গণস্বাস্থ্য-আরএনএ বায়োটেক লিমিটেড। গতকাল গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এই কিটের প্রত্যেকটির জন্য খরচ পড়বে ২০০ টাকার মতো। গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা জাফরুল্লাহ চৌধুরী একটি ইংরেজি দৈনিককে জানিয়েছেন, গণস্বাস্থ্য সিঙ্গাপুরের বিশেষজ্ঞদের একটি সমন্বিত দল এই কিট আবিষ্কার করেছে। তিনি বলেন, আমরা আশা করছি, এই কিট দেশে করোনা পরীক্ষা নিয়ে মানুষের মধ্যে তৈরি হওয়া ভয় কমাবে। আমরা ডিজিডিএ’র কাছে অনুমতির জন্য আবেদন করেছি। অনুমতি পেলে এক মাসের মধ্যে আমরা উৎপাদনে যেতো পারবো।
আমরা আশা করছি, এই ডায়াগনস্টিক কিট ২০০ টাকায় বিক্রেতা এবং ল্যাবগুলোতে দিতে পারবো।
সরকারের উচিৎ হবে বিষয়টি মনিটরিং করা যাতে সাধারণ জনগণ ৩০০ টাকার মধ্যে পরীক্ষা করাতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

আর এই কিটের মাধ্যমে পরীক্ষার ফল পেতে কয়েক ঘণ্টা থেকে দুই দিন সময় লাগতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this:
Skip to toolbar