Home / বিনোদন / মিষ্টি চাহনিতে জানিয়ে দিন ভালোবাসি

মিষ্টি চাহনিতে জানিয়ে দিন ভালোবাসি

mist

সম্পর্ক অনেকদিনের, তাই সব কিছুই বড্ড একঘেয়ে লাগে। তাই সম্পর্ক যত পুরনোই হয় না কেন? তাকে কখনও একঘেয়ে হতে দেবেন না। আপনি চাইলেই সম্পর্ককে রোম্যান্টিক করে তুলতে পারেন। জেনে নিন সম্পর্ককে রোমান্টিক করে তুলবেন কিভাবে

১.সঙ্গীর সঙ্গে সময় কাটাতে চান? নিজের ইচ্ছা মনে চেপে রাখবেন না। সঙ্গীকে ফোনে জানিয়ে দিন কোথায় দেখা করবেন। জীবনটাকে একটু রোম্যান্টিক করে তুলুন।

২.সঙ্গীর প্রতি পদক্ষেপেই অহেতুক ভুল খুঁজে বের করবেন না। ভুল খুঁজে বের করাটা সম্পর্কের ক্ষেত্রে খারাপ প্রভাব ফেলে।

৩.একে অপরের সম্পর্কে রোজকার প্রশংসাই সম্পর্কের চাবিকাঠি। সম্পর্কে রোম্যান্সও টিকিয়ে রাখে।

৪.আইল্যান্ডে ছুটি কাটানো বা ফাইভ স্টার হোটেলে ডিনার অবশ্যই ভীষণ রোম্যান্টিক একটা ব্যাপার। কিন্তু সেটা তো আর রোজ রোজ সম্ভব নয়। পকেটে টান পড়তে পারে। এর থেকে উইকএন্ডে বা সময় পেলে সঙ্গীকে পছন্দের খাবার বানিয়ে দিন। এই ছোটখাটো ব্যাপারগুলোও কিন্তু অনেক বেশি ছাপ ফেলে সম্পর্কে।

৫.সারাদিন ঘাড় গুজে কাজ করার পর খুব স্বাভাবিক ভাবেই আপনার সঙ্গী ক্লান্ত হয়ে বাড়ি ফেরেন। তার উপর বেশি ঘ্যানঘ্যান করবেন না। তার সঙ্গে কথা বলে অবসাদ কাটানোর চেষ্টা করুন। প্রয়োজনে সঙ্গীকে আরামদায়ক মাসাজ দিন।

৬.জীবনটাকে একঘেয়ে হতে দেবেন না। রোমাঞ্চকর করে তুলুন।

৭.মাঝে মধ্যেই সঙ্গীকে উপহার দিয়ে চমকে দিন।

৮.হতে পারে আপনাদের সম্পর্ক অনেক দিনের পুরনো। তা সত্ত্বেও নিজেকে অগোছালো করে রাখবেন না। আকর্ষণীয় করে তুলুন।

৯.একটু আধটু খুনসুটিই যদি সম্পর্কের মধ্যে না থাকে তাহলে অনেক সময়ই সেই সম্পর্ক নিরস হয়ে থাকে।

১০.পুরনো দিনগুলির কথা মনে করুন। সেই সময়ে কোন বিষয়গুলো আপনার বা সঙ্গীকে আনন্দে মাতিয়ে তুলত মনে করুন। আজ না হয় আর একবার সেই দিনগুলোতে ফিরে গিয়ে চমকে দিলেন সঙ্গীকে।

১১.সম্পর্কের মধ্যে যে বিষয়গুলো কুপ্রভাব ফেলে তা মন থেকে দূরে সরিয়ে ফেলুন। তা না হলে হাজার চেষ্টা করেও জীবনে রোম্যান্স ফিরিয়ে আনতে পারবেন না।

১২. মিষ্টি করে দুজন দুজনার দিকে তাকিয়ে থেকে, মুখে না বলেও বুঝিয়ে দিন ভালোবাসি, বড় ভালোবাসি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: