Home / আর্ন্তজাতিক / যুক্তরাষ্ট্র শীর্ষে বাংলাদেশ ৪৭তম করোনা আক্রান্তের

যুক্তরাষ্ট্র শীর্ষে বাংলাদেশ ৪৭তম করোনা আক্রান্তের

যুক্তরাষ্ট্রে বৈশ্বিক মহামারী নভেল করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এখন সবচেয়ে বেশি । প্রতিদিন সংক্রমিতের সংখ্যা বিচারে বাংলাদেশের অবস্থান ৪৭তম। যুক্তরাষ্ট্রের পর আক্রান্ত বেশি হচ্ছে স্পেনে।

করোনা বিভীষিকায় বিপর্যস্ত ইতালির অবস্থা আগের চেয়ে কিছুটা উন্নতি হলেও আক্রান্তের হিসাবে দেশটি তৃতীয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত বুলেটিনে প্রাপ্ত তথ্যে দেখা যাচ্ছে, গত ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্তের পর ধাপে ধাপে নমুনা পরীক্ষাও বাড়ানো হয়েছে। এখন প্রতিদিন গড়ে তিন থেকে সাড়ে তিন হাজারের মতো টেস্ট করা হচ্ছে।

শুক্রবার পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যায় বাংলাদেশ বিশ্বে ৪৭তম স্থানে আছে। গত ২৪ ঘণ্টায় মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৩,৬৮৬টি। আর রেকর্ডসংখ্যক ৫০৩ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছেন ৪ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৪ জন।

আইইডিসিইআর থেকে পাওয়া তথ্যে জানা যায়, সবমিলিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৩৯,৭৭৬টি। এসব পরীক্ষা থেকে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে মোট ৪,৬৮৯ জন। আর মোট মৃত্যু হয়েছে ১৩১ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ১১২ জন। তবে সুস্থতার বিপরীতে করোনায় মৃত্যুহারের দিক দিয়ে দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশ এগিয়ে।

দেশ হিসেবে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বিচারে বাংলাদেশের ঠিক আগেই আছে পানামা (আক্রান্ত ৬,১৬৬) এবং ডমেনিকান রিপাবলিক (আক্রান্ত ৫৫৪৩)।

আর করোনা আক্রান্তের দিক দিয়ে বিশ্বে সবার শীর্ষে আছে আমেরিকা। সেখানে মোট আক্রান্তের পরিমাণ ৮৮৬৭০৯ এবং মৃত্যু ৫০২৪৩। দ্বিতীয় স্থানে আছে স্পেন। ২১৯৭৬৪ আক্রান্তের থেকে মৃত্যু হয়েছে ২২৫২৪ জনের। ইতালিতে পরিস্থিতির উন্নতি হলেও দেশটি এখন আছে তৃতীয় স্থানে। তাদের মোট আক্রান্ত ১৮৯৯৭৩ এবং মৃত্যু ২৫৫৪৯ জন।

সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করে নভেল করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে চলছে সরকার ঘোষিত ছুটি। ইতোমধ্যেই সেই ছুটি পঞ্চম ধাপে বেড়ে ৬ মে পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছে। অতি সংক্রামক এই ব্যাধি থেকে নিরপাদ থাকতে সবাইকে ঘরে থাকার কথা বলে আসছে সরকার। সরকারের নির্দেশ মোতাবেক জনপ্রশাসনের সঙ্গে পুলিশ ও সেনাবাহিনী মানুষকে ঘরে রাখার চেষ্টা করে যাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: