Home / ফিচার / স্বপ্নপূরণে বাধা এখন অভাব সেই হায়দার আলীর

স্বপ্নপূরণে বাধা এখন অভাব সেই হায়দার আলীর

নিজের হুইল চেয়ার দান করে দেওয়া কুড়িগ্রামের সেই হায়দার আলীর পরিবার ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গনে ভিটেমাটিসহ সর্বস্ব হারিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে। শত প্রতিকূলতা আর অভাবকে জয় করে তার ছেলে অদম্য মেধাবী গাজীউল হক গাজী এবার এসএসসি (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় জিপিএি-৫ পেয়েছেন। কিন্তু মেধাবী ছেলের পড়ালেখা শেষ করানোর স্বপ্ন বাস্তবায়নে একমাত্র বাধা এখন অভাব।

ছেলের ভাল ফলাফলে কেমন লাগছে এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, দুই-তিন দফায় ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গনে সবকিছু হারিয়ে ফেলেছি। এদিকে অভাবের সঙ্গে লড়াই করে বড় মেয়ের বিয়ে দেয়ার পর কর্মহীন অবস্থায় সংসার চালাতে হিমশিম খাচ্ছিলাম। তাই শ্বশুরবাড়ির লোকজনের সঙ্গে কথা বলে ছেলে ও দুই মেয়েসহ স্ত্রীকে ওখানেই পাঠিয়ে দেই। মেজো মেয়ে ফেরদৌসী সংসারের হাল ধরতে ঢাকায় একটি গার্মেন্টসে চাকরি নেয়। এরপর স্ত্রী মেজো মেয়ের সঙ্গে ঢাকা থাকতে শুরু করে। ছোট মেয়ে জেবা আনিকা ও একমাত্র পুত্র গাজীউল হক রংপুর জেলার তারাগঞ্জ উপজেলায় ইকরচালী গ্রামে নানার বাড়িতে থেকেই লেখাপড়া চালাতে থাকে। ছোটমেয়ে জেবা আনিকা রংপুর কারমাইকেল কলেজ থেকে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিষয় নিয়ে মাষ্টার্স শেষ করেও চাকরি না হওয়ায় বেকার বসে আছে। ছেলে গাজিউলি হক এবার এসএসসি (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় কম্পিউটার ট্রেডে জিপিএ-৫ পেয়েছে।

কথাগুলো বলতে বলতেই তার দু’চোখ ছলছল করে উঠে। চোখের পানি মুছতে মুছতেই বলেন, ‘মেয়েটার চাকরি আর ছেলেটার বাকি লেখাপড়াটা শেষ করাতে পারলে মরেও শান্তি পাব।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: