হাজার ফুট উপরে শক্তিশালী কাঁচের ব্রিজ চীনে

4

glass bridgepic-1_118341_0 glass bridgepic-2_118341_1glass bridgepic-3_118341_2glass bridgepic-4_118341_3ঢাকা : সম্প্রতি পর্যটকদের আমন্ত্রণ জানানো হয় চীনের সবচেয়ে বড় কাঁচের ব্রিজের নিরাপত্তা যাচাইয়ের জন্য। চীন গত কয়েক বছর ধরে কাঁচের গ্লাসের ব্রিজ নির্মাণে বিনিয়োগ বাড়াচ্ছে বলে মনে হচ্ছে। এটি প্রশংসনীয় যে, তারা এ রকম ব্রিজ নির্মাণে সফলতার স্বাক্ষর রেখেছে।

গত শনিবার চীনের হুনান প্রদেশের অন্তর্গত জেংজিয়াজি গ্র্যান্ড ক্যানিয়নের উপর নির্মিত কাঁচের ব্রিজে প্রায় ৩০ জন পর্যটককে আমন্ত্রণ জানানো হয়। সেখানে পর্যটকদের হাতে ৫.৫ কেজি ওজনের হ্যামার তুলে দেয়া হয়। ৪৩০ মিটার দৈর্ঘ্যের(এক হাজার ৪১১ ফুট) এবং ভূমি থেকে ৩০০ মিটার(৯৮৪ ফুট) উঁচুতে অবস্থিত এই ব্রিজটিকে বিশ্বের সর্ববৃহৎ কাঁচের ব্রিজ বলা হয়। সম্প্রতি ব্রিজটির নির্মাণ কাজ শেষ হয়েছে। একসঙ্গে ৮০০ মানুষ ব্রিজটির উপর দাঁড়িয়ে প্রাকৃতিক দৃশ্য উপভোগে সক্ষম হবে।

মূলত মে মাসে ব্রিজটি জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করার কথা ছিল। প্রচুর বৃষ্টিপাতের কারণে জুলাই মাসে এটি উদ্বোধন করা হবে।

পর্যটকদের কেউই হ্যামার দিয়ে ব্রিজটির কাঁচ ভাঙতে সক্ষম হয়নি। তবে কাঁচের উপরের স্তরে ফাটল ধরাতে সক্ষম হয়েছে। ব্রিজটিতে তিন স্তরের কাঁচ রয়েছে। প্রতিটি স্তর ১৫ মি:মি: বা ০.৬ ইঞ্চি পুরো। পর্যটকদের হ্যামার দিয়ে ব্রিজে আঘাত করার পর ১১ জন যাত্রীসহ দুই মেট্রিক টন ওজনের একটি ভলভো সাব স্পোর্টস কার ব্রিজটির উপর দিয়ে যায়।

পার্কের কর্মকর্তা চেন ঝিডং বলেন, “ব্রিজের কাঁচে ফাটল ধরলেও এটি টুকরো টুকরো হয়ে ভাঙবে না। পথচারীরা নির্বিঘ্নে হেঁটে যেতে পারবে।”

দর্শণার্থীদের মনে যেন কোনো প্রকার ভীতি সঞ্চার না হয় তার জন্য এই আয়োজন করেছে পার্ক কর্তৃপক্ষ। গত বছর চীনের ইয়োনতাই পাহাড়ে কাঁচের ব্রিজে ফাটল দেখা দেয়ায় মানুষের মনে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছিল। সূত্র: এনডিটিভি।