Home / আদালত / ১৩ বিচারক ও ২৬ কর্মচারীর করোনা, নিম্ন আদালতের

১৩ বিচারক ও ২৬ কর্মচারীর করোনা, নিম্ন আদালতের

১৩ জন বিচারক ও ২৬ জন কর্মচারী করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন দেশে নিম্ন আদালতের । তাদের মধ্যে দুজন বিচারক সুস্থ হয়েছেন। এ ছাড়া করোনার উপসর্গ নিয়ে আইসোলেশনে আছেন চারজন বিচারক।

আজ মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টের মুখপাত্র মোহাম্মদ সাইফুর রহমানের পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়। ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে বিচারকাজ পরিচালনা ও দায়িত্ব পালনের মধ্যেই তারা সংক্রমিত হন।

বিজ্ঞপ্তি থেকে জানা যায়, বিচারকপদের মধ্যে প্রথম করোনায় সংক্রমিত হন নেত্রকোনার জেলা ও দায়রা জজ শাহাজাহান কবির। একই দিন মুন্সিগঞ্জের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বেগম রোকেয়া রহমান সংক্রমিত হন। তারা সুস্থ হয়ে কাজে যোগ দিয়েছেন।

ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের (সিএমএইচ) আইসিইউতে চিকিৎসাধীন আছেন লালমনিরহাটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক (জেলা জজ) ফেরদৌস আহমেদ। তাকে প্লাজমা দেওয়া হয়েছে।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৮-এর বিচারক বেগম শামীম আহমেদ (সিনিয়র জজ)।

এ ছাড়া নিম্ন আদালতের আরও নয়জন বিচারক করোনায় সংক্রমিত হয়ে নিজ নিজ বাসায় চিকিৎসাধীন। তারা হলেন কিশোরগঞ্জের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক শংকর হালদার (জেলা জজ), জয়পুরহাটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. রুস্তম আলী (জেলা জজ), আইন মন্ত্রণালয়ের আইন ও বিচার বিভাগের উপসচিব এস মোহাম্মদ আলী (জেলা জজ), কুড়িগ্রাম ল্যান্ড সার্ভে ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. তৈয়ব আলী, ডিপিডিসি-২-এর স্পেশাল ম্যাজিস্ট্রেট বেগম রেজমিন সুলতানা, নেত্রকোনার সহকারী জজ মো. মেহেদী হাসান, চট্টগ্রামের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শিপলু কুমার দে, চট্টগ্রামের মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু সালেহ মোহাম্মদ নোমান, নোয়াখালীর হাতিয়ার চৌকি আদালতের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. নিজাম উদ্দিন।

কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত সব বিচারকের সঙ্গে দেশের প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন কথা বলেছেন বলে জানা যায়। সুপ্রিম কোর্ট থেকে ২৬ জন কর্মচারীর চিকিৎসা বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে সংশ্লিষ্ট জেলার জেলা জজদের অনুরোধ জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রধান বিচারপতির নির্দেশে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিদের কোভিড-১৯ সংক্রান্ত বিষয়ে সার্বক্ষণিক যোগাযোগের জন্য সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

এ ছাড়া অধস্তন আদালতের বিচারকদের কোভিড-১৯ জনিত চিকিৎসাসংক্রান্ত বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের রেজিস্ট্রারের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের অপর একটি কমিটি কাজ করছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: