২০ লাখ ডোজ টিকা দ্বিতীয় চালানে এলো

66

২০ লাখ ডোজ এসে পৌঁছেছে ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউটে উৎপাদিত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার দ্বিতীয় চালানের ।  সোমবার রাত সোয়া ১২টায় মুম্বাই থেকে স্পাইস জেটের একটি উড়োজাহাজে করে টিকার চালান ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছায়। এ নিয়ে করোনাভাইরাসের টিকার ৯০ লাখ ডোজ বাংলাদেশে এসেছে। ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে সরকারিভাবে কেনা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার প্রথম চালান গত ২৫শে জানুয়ারি এয়ার ইন্ডিয়ার বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় পৌঁছায়। ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে সরকারিভাবে কেনা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার প্রথম চালান গত ২৫শে জানুয়ারি এয়ার ইন্ডিয়ার বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় পৌঁছায়। এর মধ্যে সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে বাংলাদেশ সরকারের কেনা তিন কোটি ডোজ টিকার মধ্যে প্রথম চালানে ৫০ লাখ ডোজ এসেছিল গত ২৫ জানুয়ারি। তার আগে ভারত সরকার উপহার হিসেবে দিয়েছিল ২০ লাখ ডোজ টিকা। সেরাম ইনস্টিটিউটের সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী প্রতি মাসে ৫০ লাখ ডোজ করে ছয় মাসে তিন কোটি ডোজ টিকা দেওয়ার কথা।
নতুন আসা টিকা বহন করতে বেক্সিমকোর পাঁচটি ফ্রিজার ভ্যান ঢাকা বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিল। উড়োজাহাজ থেকে নামানোর পর টিকা নিয়ে এসব ভ্যান যায় টঙ্গীতে বেক্সিমকোর ওয়ারহাউজে।

রাত দেড়টার দিকে ফ্রিজার ভ্যানগুলো টিকা নিয়ে বিমানবন্দর ত্যাগ করে। সেখানে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা থাকলেও সাংবাদিকদের সঙ্গে কেউ কথা বলেননি। পরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখার ডেপুটি প্রোগ্রাম ম্যানেজার ডা. আবু নাঈম মোহাম্মদ সোহেল ২০ লাখ ডোজ টিকা আসার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।